হুবহু রামলালা! প্রাচীন বিষ্ণু মূর্তি, শিবলিঙ্গ মিলল কর্নাটকের নদীতে | SANGBAD BHAVAN  

হুবহু রামলালা! প্রাচীন বিষ্ণু মূর্তি, শিবলিঙ্গ মিলল কর্নাটকের নদীতে

সম্প্রতি কর্ণাটকের কৃষ্ণা নদী থেকে উদ্ধার হলো প্রাচীন বিষ্ণু মূর্তি! যেটি দেখতে হুবহু অযোধ্যার রামলালার মতো। একইসাথে একটি শিবলিঙ্গ উদ্ধার করা হয়েছে। জানা গিয়েছে, রায়চুর জেলার দেবরসুগুর গ্রামের কাছে নদীর ওপর একটি সেতুর কাজ চলছিলো।

সেখানেই খননকার্যের সময় এই মূর্তিটি পাওয়া গিয়েছে। এই মূর্তিটি পাথরের তৈরি মেটে রঙের। স্থানীয়রা দাবী করেছেন মূর্তিটি দেখতে ঠিক অযোধ্যার রামলালার মতো। যারা নির্মাণকর্মী ছিলেন তারা ওই মূর্তি এবং শিবলিঙ্গ উদ্ধার করে প্রশাসনকে খবর দেন।

আরও পড়ুন,
*মাধ্যমিকের ভয়ে বাড়ি থেকে চম্পট রিষড়ার ২ তরুণী, পুলিশের তৎপরতায় খোঁজ মিলল আজমেঢ় শরিফে
*Indrani Halder: প্রেমদিবসের আগে প্রেমজীবনের অজানা তথ্য তুলে ধরলেন ইন্দ্রাণী হালদার, কী বললেন অভিনেত্রী?

এই বিষয়ে প্রত্নতত্ত্ব এবং প্রাচীন ইতিহাসের অধ্যাপক পদ্মজা দেশাই জানিয়েছেন এই মূর্তির বেশ কিছু বৈশিষ্ট্য রয়েছে। যেমন মূর্তিটির চারপাশে বিষ্ণুর দশ অবতারের অস্তিত্ব রয়েছে। আর এটি যে শৈলীতে তৈরি হয়েছে সেটি অনেক পুরনো।

যার চারপাশে রয়েছে ‘মৎস্য’, ‘কূর্ম’, ‘বরাহ’, ‘নৃসিংহ’, ‘বামন’, ‘পরশুরাম’, ‘রাম’, ‘বলরাম’, ‘বুদ্ধ’, ‘কল্কি’ এই দশটি অবতার। পাশাপাশি এও জানা গিয়েছে এটি হয়তো একাদশ অথবা দ্বাদশ শতাব্দীতে তৈরি করা হয়েছিল।

হয়তো কোনো মন্দিরের গর্ভগৃহে এই মূর্তিটিকে স্থাপন করা হয়েছিল। কিন্তু কোনো বাহ্যিক হামলার পর সেটিকে নদীতে ভাসিয়ে দেওয়া হয় ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার ভয়ে। মূর্তিটির নাক সামান্য ভেঙে গিয়েছে। এই মূর্তি ও শিবলিঙ্গের ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় উঠে আসতেই ব্যাপক ভাইরাল হয়ে গিয়েছে।

প্রাচীন বিষ্ণু মূর্তি, শিবলিঙ্গ মিলল কর্নাটকের নদীতে
প্রাচীন বিষ্ণু মূর্তি, শিবলিঙ্গ মিলল কর্নাটকের নদীতে

আরও পড়ুন,
*‘সানা এসো’, বিরিয়ানির প্লেট হাতে ‘দাদাগিরি’র মঞ্চে ব্যারাকপুরের দাদা বউদি বিরিয়ানি খাওয়াতে ডাক! শর্ত চাপালেন সৌরভ
*Aindrila Sharma: স্মৃতিটুকুই সম্বল! প্রয়াত ঐন্দ্রিলার জন্মদিনে বিশেষ আয়োজন পরিবারের

Note: প্রতিবেদনে উল্লেখিত তথ্য বিভিন্ন নিউজ পোর্টাল / অনলাইনে পাওয়া তথ্যের উপর ভিত্তি করে লেখা। খবরের সত্যতা যাচাই করেনা Sangbad Bhavan। ভিডিও খবর পেতে সাবস্ক্রাইব করুন সংবাদ ভবন YouTube পেজ। ফলো করুন Google News, Instragram, Facebook পেজ।