'
Mark Zuckerberg manages the farmখামার সামলাচ্ছেন মার্ক জ়াকারবার্গ

মেটার কাজ ছেড়ে খামার সামলাচ্ছেন মার্ক জ়াকারবার্গ

বর্তমান তথ্যপ্রযুক্তি যুগে অন্যতম একটি নক্ষত্র মার্ক জ়াকারবার্গ। সাধারণ মানুষের মধ্যে মেটা-র জনক মার্কের জীবন নিয়ে কৌতূহলও কম নয়। কখনও জাপানি মার্শাল আর্ট জুজুৎসু কখনও মডেলিং- সবেতেই তিনি সমান পারদর্শী। তবে এ বার মার্ক জ়াকারবার্গ মন দিয়েছেন গোসেবায়। শুধু গরুর গলায় হাত না বুলিয়ে আদর করে নিয়মিত তাদের দামি শুকনো ফল এমনকি বিয়ারও খাওয়াচ্ছেন মার্ক জ়াকারবার্গ। কিন্তু,

আরও পড়ুন,
*প্লাস্টিকের বোতলে জল পান করেন? অজান্তে শরীরে ঢুকছে ‘বিষ’
*সন্তানের শিক্ষিকার সঙ্গে অবৈধ সম্পর্কে জড়িত স্বামী, ভরপুর বোল্ড সিনে ভরা এই ওয়েব সিরিজ

হঠাৎ কেন গোসেবায় মন দিলেন মার্ক?

নিজের ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে মার্ক তাঁর এই নেশার বিষয়ে জানিয়েছেন। হাওয়াই দ্বীপের কাউয়াই এলাকার প্রায় অর্ধেকটা এলাকা কিনে নিয়েছেন তিনি। সেই এলাকায় গড়ে তুলেছেন খামার। তবে মার্কের এই খামার তৈরির কারণ, উন্নত মানের গোমাংসের জোগান দেওয়া। মার্ক আরও জানিয়েছেন, মাংসের মান যাতে করে আর ভাল হয়, সে কারণেই ওই খামারে ওয়াগিউ আর অ্যাঙ্গাস প্রজাতির গরু রেখেছেন তিনি। নিয়মিত উন্নত মানের খাবার খাওয়াছেন। মাংসের মান ভালো করার জন্য গরুদের বিশেষ এক প্রকার বাদামও খাওয়াচ্ছেন।

মার্ক জ়াকারবার্গ আরও জানিয়েছেন, প্রতিটি গরু প্রতি বছর প্রায় ৫ থেকে ১০ হাজার পাউন্ড খাবার খায়। যে কারনে কয়েকশো একর জায়গা জুড়ে ম্যাকাডেমিয়া গাছের প্রয়োজন। তাঁর ম্যাক গাছ লাগাতে এবং গবাদিপশুর যত্ন নিতে তাঁর মেয়েরাও সাহায্য করে।

মার্ক জ়াকারবার্গ এর এই উদ্যোগের কারনে সোশ্যাল মিডিয়ায় জন্ম দিয়েছে জ়াকারবার্গ সম্পর্কে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার। নেটিজেন দের মধ্যে এক জন লিখেছেন- “এক দিকে তিনি তার গবাদি পশুর যত্ন নেওয়ার দাবি করছেন, আবার অন্য দিকে তাদের খাবার টেবিলে নিয়ে আসার চিন্তা করছেন?”

আরও পড়ুন,
*সুইমসুটের ফাঁকে উন্মুক্ত ক্লিভেজ, অভিনেত্রীর হটনেস পারদ চড়াচ্ছে
*UPI লেনদেনে ৭৫০০ টাকা পর্যন্ত ক্যাশব্যাক! আর পাবেন না এমন সুযোগ, জানুন কোন ব্যাংক দিচ্ছে

Note: প্রতিবেদনে উল্লেখিত তথ্য বিভিন্ন নিউজ পোর্টাল / অনলাইনে পাওয়া তথ্যের উপর ভিত্তি করে লেখা। খবরের সত্যতা যাচাই করেনা Sangbad Bhavan। ভিডিও খবর পেতে সাবস্ক্রাইব করুন সংবাদ ভবন YouTube পেজ। ফলো করুন Google News, Instragram, Facebook পেজ।